1. newsroom@saradesh.net : News Room : News Room
  2. saradesh.net@gmail.com : saradesh :
অধঃস্তন আদালতে ভার্চুয়াল শুনানিতে ১২৯২৯৩ জামিন আবেদন নিস্পত্তি - সারাদেশ.নেট
বৃহস্পতিবার, ০৫ অগাস্ট ২০২১, ০১:৩৩ অপরাহ্ন

অধঃস্তন আদালতে ভার্চুয়াল শুনানিতে ১২৯২৯৩ জামিন আবেদন নিস্পত্তি

  • Update Time : মঙ্গলবার, ১৫ জুন, ২০২১

সুপ্রিমকোর্ট প্রতিবেদক :
সারাদেশে ৪২ কার্য দিবসে অধঃস্তন আদালতে ভার্চুয়াল শুনানিতে ১ লাখ ২৯ হাজার ২৯৩ জামিন দরখাস্ত নিস্পত্তি হয়েছে ।

সুপ্রিমকোর্টের মুখপাত্র ও বিশেষ কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাইফুর রহমান ১৫ জুন এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, গত ১২ এপ্রিল হতে গতকাল ১৪ জুন পর্যন্ত মোট ৪২ কার্য দিবসে সারাদেশে অধঃস্তন আদালত এবং ট্রাইব্যুনালে ১ লাখ ২৯ হাজার ২৯৩ টি মামলায় জামিনের দরখাস্ত ভার্চুয়াল শুনানির মাধ্যমে নিষ্পত্তি হয়েছে এবং মোট ৬৫ হাজার ৮৯৯ জন হাজতী ব্যক্তি জামিন প্রাপ্ত হয়ে কারাগার হতে মুক্তি পেয়েছেন। এর মধ্যে এই ৪২ কার্য দিবসে ভার্চুয়াল আদালতের মাধ্যমে মোট জামিন প্রাপ্ত শিশুর সংখ্যা ১০৬৯ জন।

সুপ্রিমকোর্ট মুখপাত্র আরো জানান, গতকাল ১৪ জুন সারাদেশে অধঃস্তন আদালত এবং ট্রাইব্যুনালে ২ হাজার ৯৪৮ ফৌজদারি মামলায় ভার্চুয়াল শুনানিতে জামিন-দরখাস্ত নিষ্পত্তি হয়েছে এবং ১ হাজার ৩২৩ জন হাজতী অভিযুক্ত ব্যক্তি জামিন প্রাপ্ত হয়ে কারাগার হতে মুক্তি পেয়েছেন।

মহামারি করোনাভাইরাস জনিত সংক্রমণ এড়াতে এবং উদ্ভূত পরিস্থিতিতে শারিরীক উপস্থিতি ব্যতিরেকে তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম পরিচালনা শুরু হয়। এ জন্য তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার আইন-২০২০ প্রণয়ন করে সরকার এবং সুপ্রিমকোর্ট প্র্যাকটিশ ডাইরেকশন জারি করে। সে আলোকে ২০২০ সালের মে মাসে প্রথম দফায় অধঃস্তন আদালতে ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম শুরু হয়।

পরে করোনা সংক্রমণের হার কিছুটা কমলে স্বাভাবিক বিচার কার্যক্রম পরিচালনা শুরু হয়। চলতি বছরের মার্চ মাসে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় ফের ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে বিচার কার্যক্রম শুরু হয়। এর পর থাকে দ্বিতীয় দফায় টানা ৪১ কার্য দিবস ভার্চুয়ালি বিচার কার্যক্রম চলছে। এটি পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত চলবে বলে জানায় সুপ্রিমকোর্ট প্রশাসন।

ডিএএম/

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *